socks

পায়ের দুর্গন্ধে প্রেসটিজ পাঞ্চার !!

অলোক সাহেব কর্পোরেট অফিসে চাকরি করেন। প্রতিনিয়তই কমপ্লিট স্যুট পরেন। কখনও কখনও তার হাঁসফাঁস লাগে। তাই সু খুলে স্বস্তি খুজেন। কিন্তু সু খোলার পর ঘটলো ভয়াবহ কাণ্ড। পাশের চেয়ারে বসে থাকা মিস এ্যানি চারিদিকে তাকাতে লাগলো। কারণ খুজে না পেতেই বমির উপক্রম। মুহূর্তেই যা ঘটার তাই ঘটলো। অলোক সাহেব তো লজ্জায় হন্তদন্ত হয়ে এয়ার ফ্রেশনার, বডি স্প্রে অবশেষে সুগন্ধি পর্যন্ত ছড়ালেন। কিন্তু মোজার গন্ধে যেন পৃথিবী বিখ্যাত Marc Jacobs Decadence Perfume এর সুগন্ধ ম্লান হয়ে যাচ্ছে। বেচারার কি দোষ, ইচ্ছে করে তো করেনি। পা ভীষণ রকমের ঘামায়। তাই মোজার মধ্যে ব্যাক্টেরিয়া পঁচে দুর্গন্ধ ছড়াচ্ছে।

চিকিৎসাবিজ্ঞান একে বলে, হাইপার হাইড্রোসিস। অনেক চিকিৎসক একে রোগ হিসেবে অবিহিত করে থাকেন। শীতকালে এ সমস্যা তীব্র আকার ধারন করে। জেনে নিন কী কী কারণে পায়ের দুর্গন্ধ তৈরি হয়।

পায়ে দুর্গন্ধ হবার কারণ

এক
পায়ে ঘামানোই দুর্গন্ধ হবার প্রধান এবং অন্যতম কারণ। যাদের পা অতিরিক্ত মাত্রায় ঘামায় তারাই পরেন বেশি বিপাকে। ঘামের কারণে তৈরি হয় ব্যাক্টেরিয়া। আর ব্যাক্টেরিয়া পঁচে তৈরি হয় এই বিশ্রী এবং উৎকট গন্ধ।

দুই
কৃত্রিম চামড়ার জুতা পরলে পায়ে দুর্গন্ধ হওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

তিন
সিনথেটিক মোজা পরিধান করলে দুর্গন্ধ হতে পারে। কারণ এর ভেতর দিয়ে বাতাস চলাচল করতে পারেন এবং ঘামও শোষণ করতে পারে না।

চার
অবহেলাজনিত কারণে পায়ে নানা ধরণের চর্ম রোগ হয়ে থাকে। সেজন্যও দুর্গন্ধ ছড়াতে পারে।

মোজার দুর্গন্ধ থেকে বাঁচার উপায়

গন্ধ যে কারণেই হোক না কেন এ থেকে বাঁচার অনেক উপায় রয়েছে। একটু সচেতনতা এই উৎকট সমস্যা থেকে মুক্তি দিতে পারে।

ল্যাব এইড হাসপাতালের ক্লিনিক্যাল ডার্মাটোলজিস্ট মো. কামরুল হাসান চৌধুরী বলেন, পায়ের দুর্গন্ধজনিত সমস্যা এড়াতে পায়ের যত্ন নেওয়া খুব জরুরি। সাধারণ সাবান দিয়ে পা পরিষ্কার করার চাইতে গ্লিসারিনযুক্ত ময়েশ্চারাইজিং সাবান দিয়ে পা পরিষ্কার করলে পরিস্থিতির দ্রুত উন্নতি হতে পারে। পা পরিষ্কারের পরে ত্বকের সুরক্ষায় ইউরিয়াযুক্ত ময়েশ্চারাইজিং লোশন মেখে নিলে ত্বক ভালো থাকবে। এই প্রক্রিয়ায় ত্বকে ব্যাকটেরিয়ার বিস্তারও হবে কম এবং দুর্গন্ধও ছড়াবে না।

জুতার দুর্গন্ধ দূর করতে সু-ফ্রেশ পাউডার

অনেক ফার্মেসীতে সু-ফ্রেশ নামক পাউডার পাওয়া যায়। দাম ৫০ থেকে ৬০ টাকা। যা দিনে একবার ব্যবহারে সারা দিন যতই ঘামক না কেন দুর্গন্ধমুক্ত থাকা যাবে।

জুতার দুর্গন্ধ দূর করতে বেকিং সোডা

বেকিং সোডা
ছবি: বেকিং সোডা

বাইরে থেকে ঘরে ফিরে মোজা এবং সু’র ভেতরে কিছু পরিমাণ বেকিং সোডা ছিটিয়ে রাখুন। সকালে Baking Soda ঝেড়ে ফেলে জুতা-মোজা পরিধান করুন।

জুতার দুর্গন্ধ দূর করতে ভিনেগার

ভিনেগার
ছবি: ভিনেগার

একটি কাপে আপেল সাইডার ভিনেগার নিন। এক কাপ ভিনেগারের সঙ্গে ৬-৮ কাপ গরম পানি মিশিয়ে ১০ থেকে ১৫ মিনিট পা ভিজিয়ে রাখুন। এরপর ময়েশ্চারাইজার যুক্ত সাবান দিয়ে পা ধুয়ে ফেলুন। ফলে পায়ে ব্যাক্টেরিয়া তৈরি হবে না গন্ধও হবে না।

জুতার দুর্গন্ধ দূর করবে কমলার খোসা

কমলার খোসা
ছবি: কমলার খোসা

জুতার মধ্যে কয়েকটি কমলার খোসা সারারাত রেখে দিন। জুতা এবং মোজা ব্যবহারের পূর্বে খোসা ফেলে দিন। এতে খোসা জুতা-মোজার গন্ধ শুষে নিবে। আর দুর্গন্ধ থাকবে না।

জুতার দুর্গন্ধ দূর করতে টি ব্যাগ

টি ব্যাগ
ছবি: টি ব্যাগ

টি ব্যাগ ব্যাকটেরিয়া (Bacteria) জন্মাতে বাঁধা দেয়। তাই একটি টি ব্যাগ ফুটন্ত গরম পানিতে কয়েক মিনিট রেখে তুলে ফেলুন। ঠাণ্ডা হলে ১ থেকে দেড়ঘণ্টা জুতার ভেতরে রাখুন। জুতা ব্যবহারের পূর্বে টি ব্যাগ ফেলে দিন।

জুতার দুর্গন্ধ দূর করতে লবঙ্গ

লবঙ্গ
ছবি: লবঙ্গ

মোজার ভেতর কয়েকটি লবঙ্গ সারা রাত গিঁট বেঁধে রেখে দিন। কয়েকটি লবঙ্গ ফেলে রাখলেও দুর্গন্ধ দূর হবে।

পায়ের দুর্গন্ধ দূর করতে বেবি পাউডার

ছবি: বেবি পাউডার

জুতার দুর্গন্ধ দূর করতে বেবি পাউডার বেশ কার্যকর। জুতা পায়ে দেয়ার আগে কিছুটা পাউডার ছিটিয়ে নিন। তবে এক্ষেত্রে খেয়াল রাখবেন পাউডার যেন বেশি না হয়।

পায়ের দুর্গন্ধ দূর করবে ফেব্রিক সফেনার সিট

ফেব্রিক সফেনার সিট
ছবি: ফেব্রিক সফেনার সিট

জুতার দুর্গন্ধ দূর করার আরও একটি সহজ ও কাযকরী উপায় হচ্ছে ফেব্রিক সফেনার সিট। সারারাত এক টুকরো ফেব্রিক সফেনার সিট (fabric softener sheet) জুতার মধ্যে রেখে দিন। এরপর সিটটি বের করেই জুতাটি ব্যবহার করতে পারবেন!

আজকের লেখা পড়ে জেনে নিলেন কিভাবে পায়ের দুর্গন্ধ দূর করা যায়। তো আর দেরি না করে এপ্লাই করে দেখুন। আরও ভালো ভালো টিপস পেতে লাইক, কমেন্ট এবং শেয়ার করে যাদরো’র সঙ্গে যুক্ত থাকুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

ten − 3 =